এই প্রথম জার্মানিতে মাইকে আজান দেওয়া হল, ফিরে পেলো মুসলিম জনগোষ্ঠীর অধিকার।

রফিকুল ইসলাম বিভাগীয় সম্পাদক:

জার্মানির একটি আদালতে বুধবার (২৩ সেপ্টেম্বর) স্থানীয়দের দায়ের করা এ সংক্রান্ত একটি মামলা খারিজ করে দিয়েছেন। খবর আলজাজিরায়।জার্মানির উত্তর রাইন-ওয়েস্টফালিয়া অঙ্গরাজ্যের এই শহরের মুসলিম জনগোষ্ঠীটি হলো মূলত তুর্কি বংশোদ্ভূত।২০১৫ সালে দিতিব নামের জনগোষ্ঠীটির বিরুদ্ধে মাইকে আজান দেয়ার মাধ্যমে অন্যদের ধর্মীয় স্বাধীনতা হরণের অভিযোগ আনা হয়। শহরটির কর্তৃপক্ষ দিতিব জনগোষ্ঠীকে দুপুরের আগে মসজিদের মাইক ব্যবহারের অনুমতি দিয়ে রেখেছিল।তবে একটি মসজিদ থেকে মাত্র ৯০০ মিটার দূরে বসবাসকারী এক দম্পতি শহর কর্তৃপক্ষের ওই অনুমোদনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়।তাদের অভিযোগ ছিল–যে আজানের শব্দের কারণে তাদের ধর্মীয় স্বাধীনতা ক্ষুণ্ন হচ্ছে। ওই মামলার পর থেকেই শহরটিতে আজান দেয়া বন্ধ হয়ে যায়।তবে বুধবার ওই দম্পতির যুক্তি খারিজ করে দেন মুয়েন্সটার শহরের আদালত। ফলে এখন শহরটিতে আবারও আজান দেয়ার অধিকার ফিরে পেল মুসলিমরা।আদালতের রায়ে বলা হয়েছে, অন্যদের ধর্মীয়চর্চা করার অধিকারও সমাজকে অবশ্যই মানতে হবে। যতক্ষণ কাউকে ধর্মচর্চায় জোর করা হচ্ছে না, ততক্ষণ অভিযোগ জানানোর কোনো সুযোগ নেই বলে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.